লন্ডনে স্বেচ্ছাসেবক দলের ৩৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন

বিশেষ প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবক দলের ৩৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করেছে যুক্তরাজ্য স্বেচ্ছাসেবক দল। গত ১৯ শে আগস্ট লন্ডনের বিএনপি অফিসে যুক্তরাজ্য স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি নাসির আহমেদ শাহীন এর সভাপতিত্বে এবং সাধারন সম্পাদক মোহাম্মদ আবুল হোসেনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক জিয়াউর রহমান জিয়া। মাওলানা শামীমের কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে অনুষ্ঠান শুরু হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন যুক্তরাজ্য বিএনপির সংগ্রামি সভাপতি এম.এ মালেক। অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাজ্য বিএনপির সিনিয়র সভাপতি আবদুল হামিদ চৌধুরী, মুজিবুর রহমান মুজিব, মৌলভীবাজার জেলা বিএনপির সহসভাপতি এম এ মুকিত, যুক্তরাজ্য বিএনপির সাবেক যুগ্ম সম্পাদক ফেরদাউস আহমেদ, সুনামগন্জ বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক ও তাহিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান কামরুল ইসলাম, সৌদিআরব পশ্চিম অঞ্চল স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি এরশাদ আহমেদ, লন্ডন মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল কুদ্দুছ, বিএনপি নেতা এনামুল হক লিটন, আব্দুল বাছিত বাদশাহ্, এনফিল্ড বিএনপি সভাপতি হেলাল মিয়া, নর্থ ইস্ট বিএনপি সভাপতি সেলিম আহমেদ, সাধারন সম্পাদক গিয়াসউদদীন, সিনিয়র সহসভাপতি আবদুল শহীদ, মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি ফয়ছল আহমেদ, সহসভাপতি সাহেদ আহমেদ চৌধুরী, আবুতাহের মাস্টার, আজির উদ্দিন, জাসাস সাধারন সম্পাদক তাজবীর চৌধুরী শিমুল, স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহসভাপতি নজরুল ইসলাম, শরীফুল ইসলাম, মুস্তাফিজুর রহমান ফেরদাউস, শহীদুল ইসলাম স্বপন, শাহ জামাল, ইব্রাহীম মিয়া, ডালীয়া লাকুরিয়া, যুগ্ম সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম শিমু, ডাক্তার ফয়জুল ইসলাম শ্যামল, জাহেদ আহমেদ তালুকদার, অলিউর রহমান চৌধুরী, ফাহীম চৌধুরী, নুরুল আমীন আকমল, আজিম উদদীন, প্রচার সম্পাদক জুল আফরুজ, দিলাল আহমেদ, সালেহ আহমেদ, শেখ সাদেক, হারুনুর রশীদ, তাজুল আলম, কোরেশী রানা, সৈয়দ বদরুল হোসেন, সাংগটনিক সম্পাদক জামিল আহমেদ, ফজলে রহমান পিনাক। প্রধান অতিথি উনার বক্তব্যে বাংলদেশের বর্তমান রাজনৈতিক ও সামাজিক চিত্র তুলে ধরেন এবং বাংলাদেশে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠিত করার আন্দোলনে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহব্বান জানান। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে রাজপথের কঠোর আন্দোলনের বিকল্প কিছুই নেই বলেও তিনি তাঁর মতামত ব্যক্ত করেন। আগামি দিনে যুক্তরাজ্য বিএনপি আরও কঠিন আন্দোলনের দিক নির্দেশনাও তিনি দেন। সভায় আরো উপস্তিত ছিলেন যুবদলের সহ সভাপতি দেওয়ান বাছিত, আবুল খয়ের, ফলিক মিয়া, জাহীদুর রহমান, ছাত্র দলের তানিম আহমেদ, মাহবুবুর রহমান, সেলিম সরদার শওকত, সাইফুল ইসলাম মিরাজ, স্বেচ্ছাসেবক দলের ফয়ছল আহমেদ, কামরান আহমেদ, মোহাম্মদ হোসেন, ময়নুল ইসলাম সোহাগ, সুমন আহমেদ, মুন্না মিয়া, বশির আহমেদ, ফয়ছল রনক মিয়া, জহির মিয়া, শাহ সেলিম, মাওলানা তারেক।

বক্তারা অবিলম্বে বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তির দাবী জানান। গণতন্ত্রের জন্য যিনি সারা জীবন আন্দোলন করেছেন অথচ আজ তাঁকে জেলে নেয়ার অর্থই হচ্ছে বাংলাদেশের গনতন্ত্রকে কারাগারে প্রেরন করা। বাংলাদেশের জনগন অচিরেই ভোটের মাধ্যমে এই অন্যায় কর্মকান্ডের সমুচিত জবাব দেবে বলে তাঁরা বিশ্বাস করেন। অচিরেই বেগম খালেদা জিয়া মুক্তি পেয়ে, অগণতান্ত্রিক, স্বৈরাচারী, অবৈধ, ফ্যাসিস্ট সরকারের হাত থেকে আমাদের প্রিয় মাতৃভূমিকে উদ্ধার করবেন বলে সকল বক্তারাই তাঁদের মনোভাব ব্যক্ত করেন। পরিশেষে বাংলদেশের তিন বারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার ও বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপার্সন তারেক রহমানের সুস্বাস্হ কামনা করে ও বাংলদেশের সর্বস্তরের মানুষের মঙ্গল কামনা করে দোয়া করা হয়।

No comments: