মানুষের স্বাস্থ্য সুরক্ষা ও পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় গাছ-গাছালির ভূমিকা অপরিসীম; লেঃ কর্ণেল আহমেদ ইউসুফ জামিল

সাইফুল ইসলাম সুমন, জুড়ী থেকেঃ মানুষের স্বাস্থ্য সুরক্ষা ও পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষায় গাছ-গাছালির ভূমিকা অপরিসীম। বৃক্ষ জীবনের বহু মূল্যবান অক্সিজেন সরবরাহ করে। মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর বিষাক্ত কার্বন ডাই-অক্সাইড গ্যাস গ্রহণ করে বায়ুমন্ডলকে বিশুদ্ধ রাখে। বন্যপ্রাণী, পশু, পাখি ও সাপ বিচ্ছুদের নিরাপদ আবাসস্থল হলো গাছগাছালি ও ঝোপঝাড়। এ ছাড়া গাছের মধ্যে অনেক ঔষধি গুণ রয়েছে। যা রোগ প্রতিরোধ করে দেহকে সুস্থ সবল কর্মক্ষম রাখে। ফলজ বৃক্ষ সুস্বাদু ফলমূল সরবরাহ করে, যা শরীরের অপুষ্টি দূর করে। বনজ বৃক্ষ জ্বালানি কাঠ ও আসবাবপত্র তৈরির কাজে লাগে। প্রাকৃতিক দুর্যোগ প্রতিরোধে বৃক্ষ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এখন বৃক্ষরোপণের উপযুক্ত সময়। তাই আসুন আমরা সকলে মিলে একটি হলেও গাছ রোপন করি। মঙ্গলবার (১৪ আগষ্ট) জুড়ীতে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বৃক্ষ রোপন কর্মসূচীতে অংশনিয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন বিজিবি ৫২ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন এর অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল আহমেদ ইউসুফ জামিল পিএসসি। 

ওইদিন সকালে সংযুক্ত আরব আমিরাতস্থ জুড়ী ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশনের আয়োজনে ও এসোসিয়েশনের প্রতিষ্ঠাতা সৈয়দ আব্দুর রফিক নাজমুর অর্থায়নে জুড়ী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, মক্তদীর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও টিএনখানম একাডেমী ডিগ্রী কলেজে বৃক্ষ রোপন কর্মসূচীতে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জুড়ী উপজেলা চেয়ারম্যান গুলশানারা চৌধুরী মিলি, জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ জাহাঙ্গীর আলম সরদার, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার কুলেশ চন্দ্র চন্দ মন্টু, উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব তাজুল ইসলাম, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার শহিদুল ইসলাম, উপজেলা কৃষি অফিসার জসিম উদ্দিন, ওসি তদন্ত সুধিন চন্দ্র দাস, টিএনখানম একাডেমী ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ অরুন চন্দ্র দাস, প্রতিষ্ঠাতা সদস্য এম.এ মুজিব মাহবুব, উপাধ্যক্ষ ফরহাদ আহমেদ, প্রভাষক মুজিবুর রহমান, জুড়ী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সিতাংশু শেখর দাস, মক্তদীর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ইসহাক আলী, সহকারী প্রধান শিক্ষক ঝুলন রানী দেব, জুড়ী উপজেলা সাংবাদিক সমিতির সাধারন সম্পাদক সাইফুল ইসলাম সুমন, প্রভাষক রায়হানুল ইসলাম, শিক্ষক আব্দুল জলিল, জি.এম বদরুল ইসলাম, কবির আহমেদ প্রমূখ। এদিকে জুড়ী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, মক্তদীর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও টিএনখানম একাডেমী ডিগ্রী কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্যে ক্রীড়া সামগ্রী বিতরন করেন বিজিবি ৫২ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন এর অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল আহমেদ ইউসুফ জামিল পিএসসি।
 
প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিজিবি ৫২ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন এর অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল আহমেদ ইউসুফ জামিল পিএসসি আরো বলেন, মাদকের হাত থেকে আমাদের নতুন প্রজন্মকে রক্ষা করতে হলে সর্বস্তরের মানুষকে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। যার যার অবস্থান থেকে মাদকের বিরুদ্ধে সমাজিক প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। সামাজিক ঐক্যবদ্ধতার মাধ্যমে মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ দমন সম্ভব। মাদকের সংক্রমণ ক্যান্সারের মত ছড়ায়, এছাড়া সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ দমনে সবাইকে একসাথে কাজ করতে হবে। সীমান্তে অপরাধ, চোরাচালান, নির্যাতন, হত্যা, মাদকদ্রব্য পাচার, অবৈধ অস্ত্র-গোলাবারুদ বিস্ফোরক পাচার, নারী-শিশু-মানব পাচার, অবৈধ সীমান্ত পারাপার বন্ধে এবং সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ বিরোধী কাজে সকলকে এগিয়ে আসারও আহব্বান জানান তিনি।
 
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে গুলশানারা মিলি বলেন, সরকার জঙ্গিবাদ দমনে কাজ করে যাচ্ছে। মাদকের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন চলছে। আমরা চাই মাদকের বিরুদ্ধে সমাজিক সচেতনতা এবং সমাজিক আন্দোলন। আপনারা প্রশাসনকে সহযোগিতা করুন। মাদকের সাথে জড়িতদের সঙ্গে কোনো আপোষ থাকতে পারে না। বর্তমান সরকারের জঙ্গিবাদ দমনে সক্ষম হয়েছে। এটি সম্ভব হয়েছে দেশের সর্বস্তরের মানুষ সহযোগিতা করার কারণে। তবে এখনো আমাদের সতর্ক থাকতে হবে। আমাদের এই জুড়ীতে কোনো অবস্থাতেই মাদক, সন্ত্রাস ও জাঙ্গিবাদ থাকতে পারে না।

No comments: