নিজের মেয়েকে ধর্ষণ করল বাবা, স্ত্রীর মামলা

রাজবাড়ির বালিয়াকান্দি থানা পুলিশ চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টা করেছেন তার বাবা। এ ঘটনায় বালিয়াকান্দি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন স্ত্রী, অভিযোগের প্রেক্ষিতে রোববার(০৮ জুলাই) সকালে অভিযুক্ত বাবা উজ্জল শেখকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
ওই স্কুল ছাত্রীর মা ও মামলার বাদী জানান, উপজেলার বহরপুর ইউনিয়নের বাবুলতলা গ্রামের ইয়াকুব আলী শেখের ছেলে উজ্জল শেখ (৩০) সাথে ১১-১২ বছর পুর্বে তার বিয়ে হয়। তাদের একটি ছেলে (৪) ও একটি মেয়ে (১০) হয়। বাড়িতে একটি মাত্র বসত ঘরে ২টি রুম। একটিতে সে, তার স্বামী ও ছেলে এবং অন্যটিতে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া তার মেয়ে ঘুমায়। তার শশুর-শাশুড়ি বাড়ির পাশে দোকানে ঘুমায়। গত ৩০ জুন রাতে উজ্জল শেখের সাথে ঘুমানোর সময় পারিবারিক বিষয় নিয়ে মনোমালিন্যে হয়। উজ্জল শেখ তার মেয়ের সাথে রুমে গিয়ে ঘুমায়। গত ৩ ও ৪ জুলাই রাতে মেয়ের কাছে শোবার পর কোন এক সময় মেয়েকে টাকার লোভ দেখিয়ে ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোড়পুর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে। পরে তাকে তার মাকে বললে মার দিবে এবং না বললে প্রতিদিন স্কুলে যাওয়ার সময় টাকা দিবে। ৫ জুলাই সন্ধ্যায় তাকে বিষয়টি জানালে আত্বীয় স্বজনের সাথে আলোচনা করে গতকাল শনিবার(০৭ জুলাই) রাতে বালিয়াকান্দি থানায় মামলা দায়ের করে।
মেয়েকে ধর্ষনের চেষ্টার অভিযোগে গ্রেপ্তারকৃত উজ্জল শেখ জানান, উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের ভাতশালা গ্রামে স্ত্রী প্রতিনিয়ত বাবার বাড়িতে যায়। বিষয়টি নিষেধ করায় আমার সাথে বিরোধ হয়। আমাকে ষড়যন্ত্রমূলক ভাবে ফাঁসানোর জন্য মেয়েকে ধর্ষনের চেষ্টার অভিযোগে মামলা দায়ের করেছে। আমি সঠিক বিচার দাবী করছি।
বালিয়াকান্দি থানার এস,আই ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদ জানান, চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ুয়া মেয়েকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে স্ত্রী বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন। রোববার(০৮ জুলাই) সকালে অভিযান চালিয়ে উজ্জল শেখকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আসামীকে আদালতে প্রেরণের প্রস্তুতি চলছে।

No comments: