জুড়ীতে চা শ্রমিকদের সংবাদ সম্মেলন

জুড়ী টাইমস সংবাদ: মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলার ধামাই টি কোম্পানীর মালিকানাধীন পাঁচটি (ধামাই, সোনারুপা, আতিয়াবাগ চা বাগান এবং পুঁচি ও শিলঘাট ফাঁড়ি) বাগানের শ্রমিকদের ন্যায্য মজুরী, বকেয়া পাওনা, রেশন, চিকিৎসা, গৃহনির্মাণ, গ্যাস, বিদ্যুৎ, নিরাপদ পানিয় সহ বিভিন্ন দাবি আদায়ের লক্ষ্যে চলমান আন্দোলনকে বেগবান করার জন্য আগামী রবিবার ( ২এপ্রিল) সকাল ১০টা থেকে জুড়ী উপজেলা শহরের জাঙ্গিরাই ত্রিমোহনীতে অনির্দিষ্টকালের জন্য রাজপথ অবরোধ করবেন পাঁচ বাগানের শ্রমিকরা। 

সেই সাথে একই দিন থেকে বাগানে কর্মবিরতি পালনেরও ঘোষণা দেয়া হয়েছে। শুক্রবার (৩১মার্চ) সন্ধ্যায় ধামাই চা বাগান মন্ডপে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে শ্রমিক নেতৃবৃন্দ এ ঘোষণা দেন। ধামাই চা বাগানের পঞ্চায়েতের সভাপতি যাদব রুদ্র পালের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন এ এস এম জাহিদ, মিসবাউর রশিদ খান, রজত ভট্রাচার্য, রতন রুদ্র পাল, বিজয় মুন্ডা, বাদল রুদ্র পাল, শরৎ রিকমুন, গোপাল রুদ্র পাল । এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন মনজ চন্দ্র চক্রবর্তী, শুণ উরিয়া, আব্দুল হাই, মুমিন চৌধুরী, তুষার রায় চৌধুরী, গোলাম ফারুক, নূর আলী, কান্ত রুদ্র পাল, নিল কান্ত সিংহ, কে এম শর্ম্মা, কামিনী রুদ্র পাল, বাদল উরিয়া প্রমুখ। 

শ্রমিক ও স্টাফ নেতৃবৃন্দ তাঁদের বক্তব্যে বলেন, “দীর্ঘ তিন বছর থেকে বাগান গুলোতে মালিকপক্ষ কর্তৃক সৃষ্ট সমস্যার নিরসন ও শ্রমিক- কর্মকর্তার ন্যায্য অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার জন্য আন্দোলন চলে আসছে। কিন্তু মালিকপক্ষ কোন কর্ণপাত করছে না। সর্বশেষ গত ২০ মার্চ দুই সহস্রাধিক শ্রমিক উপজেলা নির্বাহি অফিসারের কার্যালয় ঘেরাও করে। এতে উপজেলা নির্বাহি অফিসারের মাধ্যমে বাগান মালিক শাফিয়া আসফ আলী ৩১ মার্চের মধ্যে সব সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দেন। কিন্তু আজ পর্যন্ত কোন প্রতিকার না পেয়ে সড়ক অবরোধ ও কর্মবিরতির মত কঠিন কর্মসূচী দিতে বাধ্য হলাম। ন্যায্য দাবি আদায়ের জন্য চা শ্রমিক নেতৃবৃন্দ সকলের সহযোগিতা কামনা করেন।”

No comments: