বড়লেখায় চা বাগানের ভুমি দখল করে খাসিয়াদের স্থাপনা নির্মাণ নিয়ে উত্তেজনা প্রশাসনের সমঝোতা বৈঠক

বড়লেখা প্রতিনিধি॥ বড়লেখায় স্কয়ার গ্রুপের মালিকানাধীন উপজেলার দক্ষিণ শাহবাজপুর ইউনিয়নের শাহবাজপুর চা বাগানের ভোগ দখলিয় প্রায় সাড়ে চারশ’ একর ভুমি জবর দখল করে খাসিয়াদের অবৈধ স্থাপনা নির্মাণকে কেন্দ্র করে সপ্তাহ ধরে বাগান পক্ষ ও খাসিয়াদের মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করে। দু’পক্ষের মুখোমুখি সংঘর্ষের আশংকা দেখা দিলে সংঘাত এড়াতে ৩ অক্টোবর সোমবার উপজেলা প্রশাসন উভয় পক্ষকে নিয়ে সমঝোতা বৈঠক করেছে।
সরেজমিন ও থানায় শাহবাজপুর চা বাগানের করা জিডি সুত্রে জানা গেছে, স্কয়ার গ্রুপের মালিকানাধীন অরগানিক চা উৎপাদনকারী রপ্তানীমুখি বাগানের লিজকৃত ও দখলিয় প্রায় সাড়ে চারশ’ একর ভুমি গত ২৮ সেপ্টেম্বর রাতের আঁধারে স্থানীয় খাসিয়ারা ভাড়াটিয়া সন্ত্রাসী নিয়ে জবর দখল করে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করেছে। জবর দখলের ঘটনায় বাগান পক্ষ ও খাসিয়াদের চরম উত্তেজনা বিরাজ করে। যে কোন সময় দু’পক্ষের মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষেরও আশংকা দেখা দেয়। বাগানের শ্রমিক নিরঞ্জন কর্মকার, বাবুল বাউরি, লক্ষীন্দর ব্যনার্জি, মেঘনাথ নায়েক প্রমূখ অভিযোগ করেন খাসিয়ারা বাগানের ভোগ দখলিয় পিচলাটিলা নামক এলাকার ভুমি জবর দখল করে ২৫ টি অবৈধ ঘর নির্মাণ করে। তাদের হুমকি ধমকিতে সপ্তাহ ধরে শ্রমিকরা কয়েকটি টিলায় চা পাতি তুলতে যাওয়ার সাহস পাচ্ছে না। চা বাগানের মহা ব্যবস্থাপক আলী আহমেদ জানান, ১১ বছর আগে নির্মিত চা বাগানের সীমানা পিলার ও নেট উপড়িয়ে হাজার হাজার চা গাছ কেটে প্রভাবশালীদের ছত্রছায়ায় স্থানীয় সন্ত্রাসী বটল মিয়া, মাসুক মিয়া, মেলেট খাসিয়া, দিরীমদের খাসিয়া, লোকাস বাহাদুর প্রমূখ পিচলাটিলার প্রায় সাড়ে চারশ’ একর ভুমি জবর দখল করে ২৫ টি অবৈধ ঘর তৈরী করে বসবাস শুরু করে। ৩০ সেপ্টেম্বর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে খাসিয়াদের অবৈধ দখল ছেড়ে দেয়ার নির্দেশ দিলেও খাসিয়ারা তা মানেনি। দেশিয় অস্ত্র-সস্ত্রে ক্রমশ তারা বাগানের ভিতরের দিকে প্রবেশের অপচেষ্টা চালাচ্ছে।
ভুমি জবর দখলকারী লোকাস বাহাদুর জানান, তারা বাগানের কোন ভুমি দখল করেননি। খাসিয়ারা সরকারী খাস জমিতে ঘর দোয়ার তৈরী করে বসবাস শুরু করেছে। উক্ত ভুমি লিজ নেয়ার দাবী করলেও লিজের কোন কাগজপত্র তিনি দেখাতে পারেননি।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার এসএম আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, বাগানের লিজকৃত ভুমি খাসিয়ারা দখলে রাখতে পারবে না। চা বাগান ও খাসিয়াদের মধ্যে সৃষ্ট উদ্ভুত পরিস্থিতি নিরসনে সোমবার প্রশাসনের মধ্যস্থতায় সমঝোতা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে উপজেলা চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (ভুমি) সমীর বিশ্বাস, থানার ওসি মোহাম্মদ সহিদুর রহমান ছাড়াও বাগান পক্ষ ও খাসিয়া নেতারা উপস্থিত ছিলেন। ডিজিটাল জরিপের মাধ্যমে ভুমি সনাক্তের পূর্ব পর্যন্ত কোন পক্ষই বিরোধীয় ভুমিতে না যাওয়ার ব্যাপারে সম্মত হয়েছেন।

No comments: