কুলাউড়ায় ইয়াবার ভয়াল থাবায় বিপথগামী হচ্ছে যুবসমাজ

বিশেষ প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের কুলাউড়ায় ইয়াবার ভয়াল থাবায় বিপথগামী হচ্ছে যুবসমাজ। গত একমাসে পুলিশ পৃথক অভিযান চালিয়ে ৯ যুবককে আটক করেছে। স্থানীয় যুবসমাজ ইয়াবার সাথে জড়িয়ে পড়ায় উদ্বেগ আর উৎকন্ঠায় আছেন অভিভাবকমহলসহ উপজেলাবাসী। 

উপজেলার আনাচে-কানাচে ইয়াবার ব্যবসা ও সেবনকারী রয়েছে বলে সূত্রগুলো জানিয়েছে। একাধিক নির্ভরযোগ্য সূত্র জানায়, ইয়াবা মূলত চট্টগ্রাম থেকেই ট্রেনে বিভিন্ন উপায়ে কুলাউড়ায় আসে। শুধু শহরে নয়, এখন উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলেও ছড়িয়ে পড়েছে ইয়াবা সেবক ও ইয়াবা ব্যবসায়ীদের নেটওয়ার্ক। মূলত কিছু নেশাখোর আর অল্পসময়ে অধিক উপার্জনের নেশায় বিভোর যুবসমাজের মাধ্যমে এর দ্রুত বিস্তার ঘটছে। কুলাউড়া সদর ইউনিয়নের বড়কাপন গ্রামে একটি পুরো পরিবার ইয়াবা ব্যবসার সাথে জড়িয়ে পড়েছে। শুধু ব্যবসা নয়, ওই বাড়িতে নানা বয়সী ইয়াবাসেবীদের যাতায়াতও রয়েছে বলে স্থানীয় সূত্র নিশ্চিত করেছে। 

থানা পুলিশ সূত্র জানায়, গত ২৪ অক্টোবর পৃথিমপাশা ইউনিয়নের উত্তর রবিরবাজার থেকে সোহেল মিয়া (২৫) নামের এক যুবককে ইয়াবাসহ আটক করে পুলিশ। গত ২৩ অক্টোবর রাতে পৌর এলাকায় অভিযান চালিয়ে নিষিদ্ধ ইয়াবা ব্যবসায়ীসহ ৪জনকে আটক করে পুলিশ। ইয়াবা বিক্রির গোপন সংবাদ পেয়ে এদেরকে আটক করে পুলিশ। এ সময় আটককৃতদের কাছ থেকে ৩৪ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। তারা পৌর শহরসহ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় নিষিদ্ধ ইয়াবা ট্যাবলেট বিক্রি করতো বলে জানিয়েছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো-পৌর শহরের দক্ষিণ জয়পাশা এলাকার আব্দুল জব্বারের ছেলে খায়রুল ইসলাম (২৬), ময়ুব আলীর ছেলে সুমন আহমদ আপন (২৭), ইউছুফ আলীর ছেলে আব্দুল মুজিব ওরফে ফেন্সি মুজিব (৩০) ও একই এলাকার আইয়ুব আলীর ছেলে আবু বক্কর (২৮)। এর আগে গত ০১ অক্টোবর রাতে অভিযান চালিয়ে উপজেলার কাদিপুর ইউনিয়নের কাদিরপুর গ্রাম থেকে ৪৮ পিস ইয়াবাসহ আমির আলীর ছেলে জুবেল মিয়া (৩৫) ও রাজনগর উপজেলার উত্তর নন্দিউরা গ্রামের সাখাওয়াত মিয়ার ছেলে নিক্সন মিয়াকে (২৮) আটক করা হয়। এছাড়া গত ৩০ সেপ্টেম্বর উপজেলার পৃথিমপাশা ইউনিয়নে অভিযান চালিয়ে ২৩ পিস ইয়াবাসহ মনসুর গ্রামের আব্দুল মালিকের ছেলে খালেদ আহমদ (২৮) ও পৃথিমপাশা ইউনিয়নের সুলতানপুর গ্রামের সোয়াইব উল্লাহ’র ছেলে বাবুল আহমদকে (২৭) আটক করে পুলিশ। পুলিশি অভিযানকালে এই সিন্ডিকেটের আরও ৪ সদস্য পালিয়ে যায় বলে আটককৃতরা পুলিশের কাছে জানায়। পালিয়ে যাওয়া ইয়াবা ব্যবসায়ীরা হচ্ছে-পৃথিমপাশা ইউনিয়নের সুলতানপুর গ্রামের আকলুম মিয়ার পুত্র মতলিব মিয়া (২৮), শেখ জালাল উদ্দিনের পুত্র সোহেল আহমদ (২৭), আকিল উদ্দিনের পুত্র নূর মিয়া (৩৫) ও দৌলতপুর গ্রামের আফতাব উদ্দিনের পুত্র জায়েদ মিয়া (২২)। এদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। এদিকে আটককৃত সকল ইয়াবা ব্যবসায়ী ও সেবনকারীদের মাদক আইনে গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়।

এ ব্যাপারে কুলাউড়া থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো: শামসুদ্দোহা পিপিএম জানান, ইয়াবা কিংবা যে কোনো মাদকদ্রব্য আটকে সবসময় তৎপর রয়েছে পুলিশ। তবে মাদকের মধ্যে ইদানিংকালে ইয়াবা ধরা পড়ছে বেশি। আর এর সাথে যুবসমাজের সম্পৃক্ততা উদ্বেগের কারণ। এটাকে প্রশাসনের পাশাপাশি সামাজিকভাবে প্রতিরোধ করতে হবে। পুলিশের পক্ষ থেকে এলাকায় মাকিং করা হবে ইয়াবা সেবক বা ব্যবসায়ীদের ব্যাপারে। এ ধরণের কোনো তথ্য থাকলে যাতে মানুষ পুলিশকে সহযোগিতা করে।

No comments: